Ultimate magazine theme for WordPress.

পর্যটন নগরী ইলাতে কিশোরীকে ৩০ জন মিলে ধর্ষণ

0

 

 

ঘটনাটি ঘটেছে দক্ষিণ ইসরায়েলের পর্যটন নগরী ইলাতে।  ওই শহরের একটি পর্যটন মোটেলে ১৭ বছরের এক কিশোরীকে গণধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে।

মঙ্গলবার ওই কিশোরীর অভিযোগের পর ২৭ বছরের এক যুবককে আটক করেছে দেশটির পুলিশ।

পুলিশ জানায়, মোটেলটির সিসিটিভির ফুটেজ দেখে একজনকে শনাক্ত করা হয়। পরে তাকে অভিযান চালিয়ে আটক করা হয়। অন্যদের আটকে অভিযান চলছে বলে জানায় ইসরায়েল পুলিশ। খবর হারেতজ ও টাইমস অব ইসরায়েলের।

প্রতিবেদনে বলা হয়, লোহিত সাগরের পাড়ে অবস্থিত ইসরায়েলের বন্দর নগরি ইলাত জর্ডান উপত্যাকার পাশে অবস্থিত। প্রাকৃতিক সৌন্দর্যমণ্ডিত এলাকাটিতে ঘুরতে আসেন ওই কিশোরী তার এক বন্ধুর সঙ্গে। সেখানে তারা মোটেলের একটি কক্ষ ভাড়া নেন।

ঘটনার সময় ওই কিশোরী মদ্যপ ছিলেন বলে পুলিশকে জানান কিশোরীর বন্ধু। তারা প্রচুর পরিমাণে মদ পান করে অচেতন ছিলেন বলে পুলিশের কাছে স্বীকার করেন তিনি। তাদের অচেতনতার সুযোগে ৩০-৩৫ জনের একটি দল তাদের ওপর হোটেল রুমে হামলা করে এবং একের পর এক পালাক্রমে ওই কিশোরীকে ধর্ষণ করে।

আটক হওয়া ওই যুবক প্রাথমিকভাবে নিজেদের অপরাধের কথা ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে স্বীকার করেছেন।

ভুক্তভোগীর সঙ্গে থাকা তার বন্ধু চেষ্টা করেও তাকে রক্ষা করতে পারেননি বলে পুলিশ জানায়।

ইসরায়েলের ধর্ষণ রোধে কাজ করা একটি সংস্থা অ্যাসোসিয়েশন অব রেপ ক্রাইসিস সেন্টার জানায়, শুধু ২০১৮ সালে ৬ হাজার ২২০টি ধর্ষণের ঘটনায় অনুসন্ধ্যান করে পুলিশ। যার মধ্যে ১ হাজার ৭শ অভিযুক্ত সরাসরি ধর্ষণের সঙ্গে যুক্ত থাকার প্রমাণ পাওয়া যায়। যা তার আগের বছরের তুলনায় ১২ শতাংশ বৃদ্ধি পেয়েছে এবং ৫ বছরের ব্যবধানে ৪০ শতাংম বৃদ্ধি পেয়েছে।

২০১৮ সালে প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে দেখা যায় ইসরায়েলে ধর্ষণের অভিযোগে মামলা হওয়া ৬৩ শতাংশ ঘটনায় ভুক্তভোগি ১২ থেকে ১৮ বছরের।

গত বছর ১১ সদস্যের একটি দল কিশোরকে গণধর্ষণের অভিযোগে আটক করে সাইপ্রাস পুলিশ। পূর্ব ভূমধ্য সাগরীয় দ্বীপটিতে ছুটি কাটাতে গিয়েছিলেন এক ব্রিটিশ নারী। সেখানে তিনি গণধর্ষণের শিকার হন ইসরায়েলি এই কিশোরদের দ্বারা। যদিও তিনি ঘটনা প্রমাণ করতে ব্যর্থ হওয়ায় সাইপ্রাসের পুলিশ আটকদের মুক্তি দেয়।

Leave A Reply

Your email address will not be published.